অনলাইন সংস্করণ:

চট্টগ্রামে র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ খুরশীদ আহম্মেদ নামের এক যুবলীগ নেতা নিহত হয়েছেন। র‌্যাব জানিয়েছে, রোববার দিবাগত রাতে ডবলমুরিং থানার আগ্রাবাদ এলাকায় এ বন্দুকযুদ্ধ হয়েছে।

নিহত খুরশীদ আহম্মেদ (৩৬) পাঠানটুলী ওয়ার্ড যুবলীগের সহ- সভাপতি ছিলেন।

র‌্যাব-৭ এর উপ-অধিনায়ক স্কোয়াড্রন লিডার সাফায়াত জামিল ফাহিম বলেন, খুরশীদকে পিস্তলসহ আটক করা হয়েছিল। পরে তাকে নিয়ে অস্ত্র উদ্ধারে গেলে তার সঙ্গীদের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধ হয়।

সংবাদমাধ্যমকে তিনি বলেন, রাত ৯টার দিকে আগ্রাবাদ কমার্স কলেজ এলাকা থেকে একটি বিদেশি পিস্তলসহ খুরশীদ আটক হন। এ সময় তিনি তার আস্তানায় আরও অস্ত্র থাকার তথ্য দেন।

সাফায়াত জামিল আরও বলেন, সেই তথ্য নিয়ে আগ্রাবাদ ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টার সংলগ্ন এলাকায় তার আস্তানায় অভিযানে গেলে খুরশীদের লোকজন র‌্যাব সদস্যদের লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। আত্মরক্ষার্থে র‌্যাব সদস্যরাও গুলি চালায়।

গোলাগুলি শেষে খুরশীদের লাশ উদ্ধার করা হয় বলে জানিয়েছেন তিনি। ঘটনাস্থল থেকে ‍দুটি পিস্তল, ১২ রাউন্ড গুলি ও দেশে তৈরি একটি এলজি উদ্ধারের কথাও তিনি জানান।

খুরশীদের বিরুদ্ধে হত্যাসহ বিভিন্ন অভিযোগে অন্তত আটটি মামলা রয়েছে বলে র‌্যাবের অভিযোগ।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

Please enter your comment!
আপনার নাম লিখুন